Support 4thPillars

×
  • আমরা
  • নজরে
  • ছবি
  • ভিডিও

  • শর্ট ফিল্ম: হাবা গোবা

    শুভস্মিতা কাঞ্জী | 17-10-2020

    'হাবা গোবা'-র পোস্টার

    টিন্ডার, নামটার সঙ্গে সবাই যথেষ্ট পরিচিতএটি একটি অন্যতম জনপ্রিয় ডেটিং অ্যাপ। বর্তমান যুগে বন্ধু বা প্রিয় মানুষ খুঁজে পাওয়ার ভার্চুয়াল উপায়। কিন্তু সেই সম্পর্কগুলো কেমন হয়? সোশাল মিডিয়া বা অ্যাপ থেকে হওয়া বন্ধুত্বগুলোই বা কেমন হয়? সেখান থেকে কি মনের মতো বন্ধু পাওয়া যায়? কী বলছে বিশাল শাহ পরিচালিত "হাবা গোবা" শর্ট ফিল্মটি?

     

     

    নন্দিনী (ত্রিধা চৌধুরী)-র সঙ্গে কুশ (ঋত্বিক ভৌমিক)-এর আলাপ হয় টিন্ডারে, এবং তারা দেখা করবে বলে ঠিক করে। নন্দিনী ভাবে আগের মতো কুশও বোধহয় শুধুই ভার্চুয়াল দুনিয়া থেকে আলাপ হওয়া একটা বন্ধু হবে মাত্র। তার থেকে বেশি না। কিন্তু গল্প যতই এগোয়, তফাৎ ধরা পড়ে। কুশের গাড়ি খারাপ হয়ে গেলে নন্দিনীদের ফ্ল্যাটে আসে। দু’জনের অনেক কথা হয়, কখনও নন্দিনীর মাধ্যমিকের রেজাল্ট নিয়ে, তো কখনও কুশের ফুড হ্যাবিটস বা অতীত নিয়ে। কুশ অবাঙালি, আর নন্দিনী বাঙালি, তাই দু’জনেই দু’জনের নাম ভুল উচ্চারণ করে, সেই থেকে মজা শুরু। নন্দিনী কথায় কথায় কুশকে হাবা গোবা বলে ডাকে, এবং বোঝে কুশ অন্যরকম, যে বন্ধুর থেকে হয়তো বেশি কিছুগল্পের শেষে তাই কুশ যখন জানতে চায়, হাবা গোবা শব্দের মানে কী, নন্দিনী জানায়, তার কাছে এই শব্দের অর্থ কুশ। 

     

    একটা মিষ্টি প্রেমের এবং বন্ধুত্বের গল্প ‘হাবা গোবা’এখানে ত্রিধা চৌধুরী এবং ঋত্বিক ভৌমিক ছাড়াও, নন্দিনীর রুম মেটের ভূমিকায় অভিনয় করেছেন প্রেরণা নাহাতা। গল্পটি অমৃত পাল এবং শারণ্য রাজগোপালেরটেরিবলি টাইনি টেলস প্রযোজিত ‘হাবা গোবা’ শর্ট ফিল্মটি দর্শককে হাসাবে, এবং একটা মিষ্টি ভাললাগার রেশ রেখে যাবে। ছবিতে ক্যামেরার কাজ ভীষণ নিপুণ। তিনজন অভিনেতার অভিনয়ই যথেষ্ট প্রশংসার দাবি রাখে। বিশেষত, ঋত্বিক, বাঙালি হয়েও তুখোড় ভাবে অবাঙালি ছেলের চরিত্রটি ফুটিয়ে তুলেছেন


    শুভস্মিতা কাঞ্জী - এর অন্যান্য লেখা


    সাধারণ মানুষের জীবনের গল্প বলে ‘মাসালা স্টেপস’।

    বর্ষশেষের আগের রাতে রূপম ইসলাম তাঁর ভক্তদের উপহার দিয়ে গেলেন এক অনন্য সঙ্গীতময় সন্ধ্যা।

    সন্তানের খুশির জন্য মায়েরা কত কীই না করতে পারে, তা জীবন হাতে কলমে আমাদের দেখিয়ে দেয়।

    ও সব বাবুদের রোগ, তাদের হয়। বুঝলেন?

    আগামীদিনে কি সত্যিই আমাদের বিদ্যুৎহীন, যোগাযোগহীন অবস্থায় দিন কাটাতে হবে?

    সাম্প্রদায়িক ভেদাভেদের পাশেই সংহতি আর মানবতার উজ্জ্বল ছবি বাংলায়।

    শর্ট ফিল্ম: হাবা গোবা-4thpillars